Home > featured > আশ্বাস মিলেছে, রাস্তা হয়নি, ভোট বয়কট গ্রামবাসীদের
আশ্বাস মিলেছে, রাস্তা হয়নি, ভোট বয়কট গ্রামবাসীদের

আশ্বাস মিলেছে, রাস্তা হয়নি, ভোট বয়কট গ্রামবাসীদের

আশ্বাস মিলেছে, রাস্তা হয়নি, ভোট বয়কট গ্রামবাসীদের

NBlive বালুরঘাটঃ রাস্তার দাবীতে ভোট বয়কটের ডাক দিলেন বালুরঘাট ব্লকের অমৃতখন্ড গ্রাম পঞ্চায়েতের তিনটি গ্রামের হাজারেরও বেশি মানুষ। মনোনয়ন জমা দিলেন কোনও রাজনৈতিক দলের সদস্যরাই। বয়কটের ডাক চকমাধব, কুতুবপুর, চিংরা গ্রামের ১২০০ মানুষ। বালুরঘাট ব্লকের অমৃতখন্ড গ্রাম পঞ্চায়েতের চকমাধব সংসদের অধীনে রয়েছেন চকমাধব, কুতুবপুর ও চিংরা গ্রাম। তিনটি গ্রাম মিলিয়ে ১২০০ মানুষের বসবাস থাকলেও ভোটার রয়েছে ৭০০। গ্রাম থেকে গুরুত্বপূর্ণ কামরাপাড়া-হিলি বা বালুরঘাট যেতে এক মাত্র রাস্তাটি মাটির।

আশ্বাস মিলেছে, রাস্তা হয়নি, ভোট বয়কট গ্রামবাসীদের

সামান্য কিছুটা ইট সোলিং থাকলেও মাঝে মাঝে হাঁটু সমান গর্ত। শীত কালে তেমন অসুবিধা না হলেও সমস্যা বাঁধে বর্ষাকালে। দুই কিলোমিটার গ্রামের রাস্তাটি দীর্ঘ দিন থেকেই বেহাল। পাকা রাস্তার দাবীতে বিভিন্ন সময় স্থানীয় পঞ্চায়েত থেকে প্রশাসনের দ্বারস্থ হয়েছেন গ্রামবাসীরা। তবে আশ্বাস ছাড়া কিছুই মেলেনি। তাই ভোটকেই পালটা হাতিয়ার করে রাস্তার দাবীতে ময়দানে নেমেছেন গ্রামবাসীরা। পঞ্চায়েত নির্বাচন আসতেই সব রাজনৈতিক দলের সদস্যরা, স্থানীয় নেতৃত্ব ও গ্রামবাসীরা ভোট বয়কটের ডাক দিয়েছে। তাঁদের একটাই দাবী আগে রাস্তা পরে ভোট। রাস্তা নেই ভোটও নেই। এমনকি এই সংসদ থেকে কোন রাজনৈতিক দলের হয়ে কেউ প্রার্থী মনোনয়ন জমা দেয়নি।

আশ্বাস মিলেছে, রাস্তা হয়নি, ভোট বয়কট গ্রামবাসীদের

গ্রামবাসী কালিপদ বর্মণ জানান, বাম আমলেও তাঁদের রাস্তা হয়নি। তৃণমূল আমলেও বেহাল দশা কাটেনি। রাস্তার সমস্যার জন্য স্কুল পড়ুয়ারা শহরে যেতে পারে না ঠিক মত। অসুস্থ হয়ে পরলে চিকিৎসার জন্য হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া মুশকিল হয়ে পরে। এমত অবস্থায় তাঁরা রাস্তার দাবী তুলেছেন। রাস্তা না হলে তাঁরা ভোট দান থেকে বিরত থাকবেন। রাস্তার দাবীতে গোটা গ্রাম এক যোগে ভোট বয়কটের ডাক দিয়েছে।

আশ্বাস মিলেছে, রাস্তা হয়নি, ভোট বয়কট গ্রামবাসীদের

স্থানীয় মাধবপুর গ্রাম পঞ্চায়েতের আরএসপির সদস্য তপন মণ্ডল জানান, এই এলাকার মেম্বার তিনি। পঞ্চায়েতের ক্ষমতায় রয়েছে তৃণমূল। রাস্তার জন্য তিনি বারংবার পঞ্চায়েত ও ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে জানিয়েছেন। তবে এখনও রাস্তা ঠিক হয়নি। এই এলাকা আরএসপি প্রভাবিত। এবার দাঁড়ালেও তিনি জয়ী হবেন। তবে এবার এলাকার সব রাজনৈতিক দলের কর্মী সদস্যরা এক যোগে ঠিক করেছেন ভোট দান থেকে তাঁরা বিরত থাকবেন।

আশ্বাস মিলেছে, রাস্তা হয়নি, ভোট বয়কট গ্রামবাসীদের

অন্য দিকে অমৃতখন্ড গ্রাম পঞ্চায়েতের তৃণমূলের প্রধান জয়ন্তী সরকার জানান, রাস্তা না হওয়ার পেছনে আরএসপি সদস্যের দোষ রয়েছে। রাস্তাটি ভাগ করার কথা বলা হয়েছিল। তিনি সেটা মানেননি। একবারে রাস্তা করার দাবী জানিয়েছেন। পঞ্চায়েতের পক্ষ একবারে অতটাকা দিয়ে রাস্তা করা সম্ভব নয় বলেই হয়নি। ।

আরও দেখুন

ফের উত্তপ্ত চোপড়া, ছড়রা গুলিতে বিদ্ধ তৃতীয় বর্ষের ছাত্রী

ফের উত্তপ্ত চোপড়া, ছড়রা গুলিতে বিদ্ধ তৃতীয় বর্ষের ছাত্রী

NBlive চোপড়াঃ ফের উত্তপ্ত চোপড়া। কংগ্রেস তৃণমূল সংঘর্ষে ছড়রা গুলিতে জখম এক ছাত্রী সহ দুই …