Thursday , August 17 2017
Breaking News
Home / featured / চাকুলিয়ায় সালিশি সভায় তালিবানি ফতোয়া, মেডিকেল ছাত্রের কপালে জুটল জুতোর ঘা

চাকুলিয়ায় সালিশি সভায় তালিবানি ফতোয়া, মেডিকেল ছাত্রের কপালে জুটল জুতোর ঘা

Nblive ইসলামপুরঃ  নিজের মোবাইল ফোন চুরির লিখিত অভিযোগ থানায় দায়ের করার অপরাধে পঞ্চাশ ঘা জুতো ও নগদ জরিমানা কপালে জুটল মেডিকেলের এক ছাত্রের। ঘটনাটি ঘটেছে উত্তর দিনাজপুর জেলার চাকুলিয়া থানার চৌকাই গ্রামে। গ্রামের মাতব্বরদের জারি করা ফতোয়ার জেরে প্রায় সাতদিন থেকে গ্রামছাড়া মেডিকেল ছাত্র মহম্মদ সুলেমান ও তাঁর বৃদ্ধ বাবা আব্দুল হাকিম। গ্রামে ফেরার আর্জি জানিয়ে ইসলামপুর মহকুমা শাসকের দ্বারস্থ বাবা ও ছেলে।
ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে উপযুক্ত আইননানুগ ব্যবস্থা নেওয়ার কথা জানিয়েছেন জেলা পুলিশ সুপার।
পুলিশসূত্রে জানা গেছে, গত ২৯ জুলাই চাকুলিয়ার চৌকাই গ্রামের বাসিন্দা আব্দুল হাকিমের বাড়ি থেকে খোয়া যায় তাঁর ছেলের মহঃ সুলেমানের মোবাইল ফোন। এরপর চাকুলিয়া থানায় লিখিত অভিযোগ জানানোর পাশাপাশি এলাকার এক যুবক জাহাঙ্গীর আলমকে ফোন চুরির বিষয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করে সে। এরপরেই জটিল হতে শুরু করে পরিস্থিতি। গ্রামের মাতব্বরদের কানে খবর যেতেই সালিশি সভার ডাক দেয় তারা। জাহাঙ্গীর আলমকে ফোন চুরির বিষয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করার অপরাধে আব্দুল হাকিম ও মেডিকেল পড়ুয়া সুলেমানকে জরিমানা করা হয় নগদ ২৫০০০টাকা। এতেও ক্ষান্ত হয় নি সালিশি সভার মাতব্বররা। সুলেমানকে ৫০ বার জুতো পেটা করার সাজা ঘোষণা করে তারা। বাধ্য হয়ে শেষে আব্দুল হাকিম সালিশি সভার সিদ্ধান্ত মেনে প্রকাশ্যে নিজের ছেলেকে ৫০ বার জুতো পেটা করে এবং জমি বন্ধক রেখে জরিমানার টাকা মাতব্বরদের হাতে তুলে দেন।
ওই মেডিকেল ছাত্রের বাবা আব্দুল হাকিম বলেন, “ আমার ছেলে এই বছরই মেডিকেলে পড়ার সুযোগ পেয়েছে। কয়েকদিন আগেই বাড়ি থেকে চুরি হয় ছেলের মোবাইল ফোন। এই বিষয়ে স্থানীয় এক যুবককে জিজ্ঞাসাবাদ ও থানায় অভিযোগ জানানোর অপরাধে গ্রামে সালিশি সভা বসায় মাতব্বররা। মিথ্যে অপবাদ দেবার কথা বলে আমাদেরকেই উল্টে আর্থিক জরিমানা ও জুতোপেটা করার ফতোয়া জারি করে মাতব্বরেরা। বাধ্য হয়েই নিজের জুতো দিয়ে ছেলেকে পেটাতে হয়। এরপর আমাদের গ্রাম থেকে তাড়িয়ে দেবার সিদ্ধান্তও নেয় তারা। প্রান বাঁচাতে ইসলামপুরে এক আত্মীয়ের বাড়িতে লুকিয়ে থাকার কথা জানিয়েছেন আব্দুল হাকিম।
জেলা পুলিশ সুপার শ্যাম সিং বলেন,“ঘটনায় একজনকে ইতিমধ্যেই গ্রেফতার করা হয়েছে। বাকিদের খোঁজ চলছে।’’
জেলাশাসক আয়েষা রানী বলেন,‘ উপযুক্ত ব্যবস্থা নিতে মহকুমাশাসককে নির্দেশ দেওয়া হচ্ছে।’

আরও দেখুন

বন্যা পরিস্থিতির অবনতি দক্ষিণ দিনাজপুরে, সাহায্য চেয়ে মুখ্যমন্ত্রীর দ্বারস্থ বাম বিধায়ক

Nblive বালুরঘাটঃ দক্ষিণ দিনাজপুরে বন্যা পরিস্হিতির অবনতি। নদীর জল আরও বেড়েছে। আজ বংশীহারি ব্লকের নারায়ণপুরের …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *